1. jitsolution24@gmail.com : Rajbaribd desk : Rajbaribd desk
সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:০৬ অপরাহ্ন

বালিয়াকান্দিতে ছাত্রী উত্যক্তকারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় দফায় তদন্ত শুরু

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৭
  • ১০০০ Time View

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া লিয়াকত আলী স্মৃতি স্কুল এন্ড কলেজের ২ ছাত্রীকে উত্যক্তকারী শিক্ষক বদিউজ্জামান ওরফে বদরকে ম্যানেজিং কমিটি সাময়িক বরখাস্ত করে।

পুর্নাঙ্গ বরখাস্ত করার আগে দ্বিতীয় দফায় ৩সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। এ কমিটি ১৫ কর্মদিবসের মধ্যে তদন্তপুর্বক প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ইতিমধ্যেই তদন্ত কাজ শুরু করেছেন।

জানাগেছে উপজেলার নারুয়া লিয়াকত আলী স্মৃতি স্কুল এন্ড কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর দুই ছাত্রী কলেজের শিক্ষক (প্রদর্শক বিজ্ঞান) বদিউজ্জামান ওরফে বদর মাষ্টারের বাড়ীতে প্রাইভেট পড়ে। কিন্তু বদিউজ্জামান তাদের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে তোলার জন্য বিভিন্ন কুপ্রস্তাব দেয়। এমনকি নানা জিনিসের লোভ দেখায়। তার প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় আগামী টেস্ট পরীক্ষায় ফেল করানোর ভয় দেখায়। এমনকি অশালিন আচরন অর্থাৎ তার বাড়ীতে একা যাওয়ার জন্য বারবার বলেন।

ওই দুই শিক্ষার্থী উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও স্কুল এন্ড কলেজের সভাপতি মোঃ মাসুম রেজার নিকট গত ১৯ অক্টোবর প্রতিকার চেয়ে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মাসুম রেজা ৩ কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত পুর্বক প্রতিবেদন দাখিলের জন্য সহকারী কমিশনার (ভুমি) ডা. তায়েবুর রহমান আশিককে নির্দেশ প্রদান করেন।
গত ২৪ অক্টোবর সকাল থেকে নারুয়া লিয়াকত আলী স্মৃতি স্কুল এন্ড কলেজে অভিযুক্ত শিক্ষক, ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী, অভিভাবক, ম্যানেজিং কমিটির সদস্য, কলেজের শিক্ষক, শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলা ও অভিযোগ সম্পর্কে তাদের বক্তব্যে গ্রহন করেন। গত ২৫ অক্টোবর ঘটনার সত্যতা রয়েছে মর্মে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন।

এ বিষয়ে গত ২৯ অক্টোবর সকালে নারুয়া লিয়াকত আলী স্মৃতি স্কুল এন্ড কলেজে ম্যানেজিং কমিটির সভা উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও কলেজের সভাপতি মোঃ মাসুম রেজার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় ম্যানেজিং কমিটির সদস্য মোঃ আকিদুল ইসলাম, আবু বক্কার সিদ্দিক, মোশারফ হোসেন, শিখা দে, আব্দুর রহিম, রফিকুজ্জামান, রিয়াজুল ইসলাম পিয়ারু, শারমিন সুলতানা, আবজাল হোসেন, আব্দুল হক ও অধ্যক্ষ একেএম সিরাজুল ইসলামের উপস্থিতিতে সভায় সর্বসম্মতিক্রমে উক্ত শিক্ষক বদিউজ্জামানকে সাময়িক বরখাস্ত করাসহ ৭ কার্যদিবসের মধ্যে কেন তাকে বরখাস্ত করা হবে না মর্মে জানতে চেয়ে কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রদান করেন।

লিয়াকত আলী স্মৃতি স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ একেএম সিরাজুল হক জানান, শিক্ষক বদিউজ্জামানকে সাময়িক বরখাস্ত করাসহ ৭ কর্মদিবসের মধ্যে কেন তাকে বরখাস্ত করা হবে না মর্মে জানতে চেয়ে কারণ দর্শানোর নোটিশ প্রদান করা হয়। তদন্ত কমিটি গত বুধবার দ্বিতীয় দফায় স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য, শিক্ষক, শিক্ষার্থী, অভিযুক্তসহ এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে তদন্ত করেছেন। আশা করছি শিঘ্রই তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করবেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Design by: JIT Solution