1. jitsolution24@gmail.com : Rajbaribd desk : Rajbaribd desk
সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:২৯ অপরাহ্ন

ওয়ে স্কেল গোয়ালন্দবাসীর গলার কাঁটাঃ বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে আহত ৭

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ২০ ডিসেম্বর, ২০১৭
  • ৩২০৯ Time View

অপরিকল্পিত সিদ্ধান্তে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে পৌর এলাকার মধ্যে বিআইডব্লিউটিসি’র রোড ভেহিক্যাল ডিজিটাল ওয়ে-ব্রীজ স্কেল (ওজন নির্ণয় যন্ত্র) স্থাপনে যানজটসহ মারাত্মক জনদূর্ভোগ সৃষ্টি হয়েছে। ঝুঁকি নিয়ে দ্রুতগামী যানবাহন চলাচল করায় এ এলাকায় প্রতিনিয়ত ঘটছে দুর্ঘটনা।

বুধবার বেলা ১১টার দিকে উপজেলা পরিষদ এলাকায় ওয়েস্কেলের সামনে ফরিদপুর থেকে ছেড়ে আসা যাত্রীবাহী গোল্ডেন লাইন পরিবহনের একটি বাস (নং ঢাকা মেট্টো ব-১১-১৬৩৭) ও পন্য বোঝাই ট্রাকের (নং ঢাকা মেট্টো ড-১৪-৫৭৫৮) মুখোমুখী সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় সাত জন আহত হয়। আহতরা হলেন ফরিদপুর জেলার ঈশানগোপাল পুর ইউনিয়নের দুর্গপুর গ্রামের আইয়ুব আলীর ছেলে রিয়াদ (১২), কানাইপুরের করিমপুর গ্রামের মোফাজ্জল মোল্লার ছেলে সুজন মোল্লা (২৯), অম্বিকাপুর ভাষানচর গ্রামের আবদুল্লাহ মোল্লার স্ত্রী ফেরদৌসী (৪০), তার ছেলে আলহাজ (২২), ফরিদপুর সদর উপজেলার রাম প্রসাদ (৬০), রাসকরদিয়া ইউনিয়নের বারখাদা গ্রামের আ. রাজ্জাকের ছেলে বিল্লাল হোসেন (৪০) ও অজ্ঞাত একজন। আহতদের মধ্যে একজনকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে এবং অন্যদেরকে গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

অত্যন্ত ব্যস্ততম মহাসড়কের পাশে কোন জায়গা না রেখে স্থাপন করা হয়েছে ওয়েব্রীজ স্কেল। শহরের গুরুত্বপূর্ণ এলাকা হওয়ায় স্থানীয় স্বাভাবিক যানবাহনের পাশাপাশি এখান দিয়ে চলাচল করে দ্রুতগতির পরিবহনসহ বিভিন্ন যানবাহন। স্কেল এলাকায় মহাসড়ক সরু হয়ে যাওয়ায় এখান দিয়ে একটি গাড়ি বিপরিত দিক থেকে আসা গাড়ির ঠিকমত সাইড দিতে পারে না। এতেকরে প্রতিটি মুহুর্তে এখানে দুর্ঘটনার আশঙ্কা দেখা দেয়।

এই ওয়েব্রীজ স্কেলের মাত্র ২শ গজ দুরে গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতাল থেকে বের হওয়ার একমাত্র রাস্তাটি অবরুদ্ধ হয়ে যাওয়া সহ বিভিন্ন গাড়ির হর্নে হাসপাতালের স্বাভাবিক পরিবেশ মারাত্মক ব্যাহত হচ্ছে। ওয়েব্রীজ স্কেলের পর থেকে পন্যবাহী ট্রাকের সিরিয়াল প্রায় সারাক্ষনই লেগে থাকে। বিশেষ করে সন্ধ্যার পর গভীর রাত পর্যন্ত তা অসহনীয় মাত্রায় চলে যায়। এতেকরে হাসপাতালের একমাত্র গেইটটি অবরুদ্ধ হয়ে যায়। এছাড়া মহাসড়কের এ এলাকায় রয়েছে উপজেলা পরিষদ, উজানচর মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, রাবেয়া ইদ্রিস মহিলা ডিগ্রী কলেজ ও উপজেলা ভুমি অফিস। যে কারণে এখান দিয়ে মানুষের চলাচল বেশী।

এ বিষয়ে গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আজিজুর রহমান খান জানান, এই স্কেলের কারণে হাসপাতালের স্বাভাবিক পরিবেশ ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে। বিশেষ করে রাতে বিভিন্ন গাড়ির হর্ণের হাসপাতাল এলাকার পরিবেশ রোগীদের জন্য দুর্বিসহ হয়ে ওঠে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Design by: JIT Solution