1. jitsolution24@gmail.com : Rajbaribd desk : Rajbaribd desk
মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৫:১৯ পূর্বাহ্ন

কী অপরূপ সুপার ব্লু ব্লাড মুন!

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮
  • ৯৯৩ Time View

সাড়ে চারশ’ কোটি বছরের চেনা চাঁদটি গতকাল বুধবারও উঠেছিল- তবে একেবারেই অচেনা রূপে। আলোয় উদ্ভাসিত হয়নি সে, ছিল তামার মতো রক্তিম। কিন্তু ঘণ্টাখানেক যেতে না যেতেই পুব আকাশ থেকে একেবারেই হাপিস হয়ে যায় তামাটে এ চাঁদ। তাহলে কি মেঘের তলে হারিয়ে গেল? কিন্তু মেঘ কই? আকাশ ভরা কত তারা! সোয়া ঘণ্টা বাদে ছায়ার আড়াল থেকে আবারও উঁকি দিল চাঁদ। এতক্ষণ পৃথিবীর ছায়ায় ঢাকা পড়ে গ্রহণ লেগেছিল এ চাঁদে। ঘণ্টাখানেক পর স্বমহিমায় মধ্যগগনে অধিষ্ঠিত হয় সে, অন্যদিনের তুলনায় আয়তনে ও আলোয় বেড়ে। যাকে বিজ্ঞানীরা বলে থাকেন, ‘সুপার মুন’।

 




এক বা দুই বছর নয়- ১৫২ বছর পর গতকাল বুধবার সূর্য, পৃথিবী, চাঁদ ছিল একই সমান্তরালে। তাই ঘটল এমন ঘটনা। সন্ধ্যায় ঘন ঘন মুখ বদল হলো চাঁদের। উদিত হলো সে রক্তিম রূপে ‘ব্লাড মুন’ হয়ে, পৃথিবীর আড়ালে পড়ে, সূর্যের আলো হারিয়ে অন্ধকারে ডুবে। পৃথিবীর ছায়া সরে যেতেই আবার আলোয় উদ্ভাসিত চাঁদের রঙ হয়ে গেল নীলচে। বিজ্ঞানীরা যাকে বলছেন, ‘ব্লু মুন’।

প্রায় দেড়শ’ পর এ পূর্ণ চন্দ্রগ্রহণ- এ সুযোগ কি হাতছাড়া করা যায়! উৎসবমুখর পরিবেশে আগারগাঁওয়ের বিজ্ঞান জাদুঘর ও কুয়াকাটা সৈকতে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে টেলিস্কোপে চোখ লাগিয়ে চাঁদ দেখেন সাধারণ মানুষ। প্রকৃতি ও মহাকাশপ্রেমী বিভিন্ন সংগঠনও আয়োজন করে চাঁদ দেখার উৎসব। রাজধানীর মাণ্ডায় গ্রিন মডেল টাউনের উন্মুক্ত প্রান্তরে টেলিস্কোপে চাঁদ দেখার ক্যাম্প করে অনুসন্ধিৎসু চক্রের জ্যোতির্বিজ্ঞান বিভাগ। রাজশাহী এবং পঞ্চগড়েও চাঁদ দেখার উৎসবে এর রূপে মুগ্ধ ও বিস্মিত হন দর্শনার্থীরা। শুধু ক্যাম্পে নয়, কেউ ছাদে কেউ জানালার গ্রিলের ফাঁকে দেখেছেন গ্রহণের রক্তিম চাঁদ। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে দেয়ালে দেয়ালে ঘুরছে এখনও পৃথিবীর ছায়ার আড়ালে পড়া ঘোলাটে চাঁদের ছবি।

মহাবিশ্বের বয়স সাড়ে তেরশ’ কোটি বছর। সে তুলনায় পৃথিবী একেবারে শিশু বয়সী- মোটে ৪৬০ কোটি বছর। তার ক’দিন পর থেকেই চাঁদ পৃথিবীর অবিচ্ছেদ্য সঙ্গী। পৃথিবীর জন্মের নয় কোটি বছর বাদেই চাঁদের জন্ম। সেই থেকে ঘুরছে সে পৃথিবীকে কেন্দ্র করে।

বিজ্ঞান বলে, মহাকর্ষের মায়ায় ঘুরছে চাঁদ। বিজ্ঞান যাই বলে বলুক, সাড়ে চারশ’ কোটি বছরের পুরনো চাঁদ আজও বিস্মিত করে সবাইকে- যেমন করেছিল প্রথম দিনে। গতকালও করেছে। শুধু বাংলাদেশ নয়, পুরো দক্ষিণ গোলার্ধ দেখেছে চাঁদের রক্তিম ও নীল রূপ। এ বিরল মহাজাগতিক দৃশ্য উপভোগ করে উত্তর আমেরিকা, এশিয়া, মধ্যপ্রাচ্য, রাশিয়া ও অস্ট্রেলিয়ার মানুষ, যা শেষ দেখা গিয়েছিল ১৮৬৬ সালে।

নাসার হিসাবে, গতকাল সাধারণ পূর্ণিমার চেয়ে সাত শতাংশ বেশি বড় দেখা যায় চাঁদ। জোছনার আলো ছিল ১৫ শতাংশ বেশি। বুধবার বিকেল ৫টা ৪৮ মিনিটে আংশিক চন্দ্রগ্রহণ শুরু হয়। সন্ধ্যা ৬টা ৫১ মিনিটে পূর্ণগ্রহণ শুরু হয়। সাতটা ২৯ মিনিটে পৃথিবীর ছায়া পূর্ণগ্রাস করে চাঁদকে। ৮টা ৭ মিনিটে গ্রহণ সমাপ্ত হয়। নয়টা ১১ মিনিটে আংশিক গ্রহণও শেষ হয়। রাত ১০টা ৮ মিনিটে উপচ্ছায়া সরে গিয়ে স্বমহিমায় অধিষ্ঠিত হয় নীলাভ পূর্ণচাঁদ।

রাজবাড়ীবিডি.কম এ বিষয়টি সরাসরি প্রচার করেছে তাদের ফেসবুক পেজে। আর এই ভিডিও চিত্র অবলোপন করেছে বিপুল সংখ্যক পাঠক।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Design by: JIT Solution