1. jitsolution24@gmail.com : Rajbaribd desk : Rajbaribd desk
সোমবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৯:৫৬ পূর্বাহ্ন

রাজবাড়ীতে বন বিভাগের কয়েক লক্ষ টাকার গাছ চুরি

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ৩০ জানুয়ারি, ২০১৯
  • ৫৪৮ Time View

মেহেদী হাসান ॥
রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানগঞ্জ ইউনিয়নের প্রায় এক কিলোমিটার এলাকায় বন বিভাগের কয়েক লক্ষ টাকা মূল্যের শতাধিক গাছ চুরির ঘটনা ঘটেছে।
রাজবাড়ীর বন বিভাগের কার্যালয়ের তথ্য মতে, ২০০১ ও ২০০২ অর্থ বছরে রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ব্রীজ থেকে খানগঞ্জ ইউনিয়নের দাদপুর বাজার ব্রীজ পর্যন্ত প্রায় চার কিলোমিটার এলাকায় হড়াই নদীর পাড় সংরক্ষনে সামাজিক বনায়ন প্রকল্পের আওতায় বন বিভাগ কয়েক হাজার ফলজ ও বনজ বৃক্ষ রোপন করে।
বুধবার সকালে সরেজমিনে খানগঞ্জ ইউনিয়নের দাদপুর সরকারী প্রাথমিক এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, সেখান থেকে দাদপুর বাজার ব্রীজ পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার এলাকায় ১৭ বছর আগের রোপন করা মেহগনি গাছসহ কোন গাছ নেই। পরে আছে গাছের গুরি। এ সময় ছবি তুলতে দেখে স্থানীয়রা জরো হয়।
দাদপুর এলাকার বাসিন্দা করিমন বিবি বলেন, গত শনিবার থেকে সোমবার বিকেল পর্যন্ত দিনের বেলায় প্রায় ৫০ থেকে ৬০ জনের একটি দল দশ থেকে বারো জন করাতি নিয়ে এসে এই গাছ গুলো কেটেছে। ওই সময় মনে হয়েছে এখানে যেন গাছ কাটার উৎসব চলেছে। তিনি আরো বলেন, আমরা কোন গাছ কাটিনি তবে গাছের ডালপালা, পাতা, লাকরি হিসেবে ব্যবহারের জন্য নিয়েছি।
খানগঞ্জ বাজার এলাকার বাসিন্দা আরব আলী মন্ডল বলেন, কয়েকটি দলে বিভক্ত হয়ে এই গাছগুলো কাটা হয়েছে। সাথে সাথে ট্রাকে করে নেওয়া হয়েছে রাজবাড়ী ও কুষ্টিয়ার দিকে হয়তো বিভিন্ন স-মিলে গাছগুলো চোরেরা বিক্রি করেছে।
খানগঞ্জ ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান খন্দকার বাবলু জানান, এই গাছগুলোর কারনে হড়াই নদীর তীর সংরক্ষনে ছিলো। এই এলাকায় গাছগুলোর কারনে নদী ভাঙ্গন দেখা দেয়নি। যে গাছগুলো চুরি হয়েছে প্রতিটি গাছের বর্তমান বাজার মূল্য কমপক্ষে ১৫ হাজার টাকা করে হবে। সেই হিসেব করলে কয়েক লক্ষ টাকার গাছ চুরি হয়েছে।
খানগঞ্জ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি চৌধুরী আকরামুজ্জামান রঞ্জু জানান, সরকারের এত বড় ক্ষতি হয়ে গেলো এটা মেনে নেওয়া যায় না। এ ঘটনার সাথে যারাই জরিত থাক, সে যদি আওয়ামী লীগের কেউ হয় তবুও তদন্ত সাপেক্ষে বিচার হওয়া প্রয়োজন।
এদিকে সড়কের গাছ চুরির খবর পেয়ে রাজবাড়ীর থানা পুলিশের সহায়তায় বন বিভাগের কর্মকর্তারা মঙ্গলবার বিকেলে ওই এলাকায় অভিযান চালায়। ঘটনাস্থল থেকে কেটে ফেলা বিপুল পরিমান গাছ জব্দ করেন তারা।
এ ব্যপারে রাজবাড়ীর বন কর্মকর্তা মীর সাইদুর রহমান জানান, আমরা দাদপুর এলাকা থেকে ৬৭ টি মেহগনি গাছের খন্ড উদ্ধার করে স্থানীয় শামীম এবং আব্দুল আলীমের সমিলে মার্কিন করে রেখে এসেছি। উদ্ধাকৃত গাছের পরিমান ২১৮ ঘনফুট। গাছ চুরির ব্যপারে আমরা একটি মামলা দায়ের করবো। যার প্রস্তুুতি চলছে।
রাজবাড়ী থানার এস আই এনছের আলী জানান, খবর পেয়ে রাজবাড়ী থানা পুলিশ বন বিভাগকে সহযোগিতা করেছে। আমরা যতদুর জেনেছি স্থানীয় একটি প্রভাবশালী চক্র এই গাছ চুরির সাথে জরিত থাকতে পারে। বন বিভাগের কর্মকর্তারা মামলা দায়ের করলে সাথে সাথে জরিতদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
Design by: JIT Solution